টিভি ব্রেকিংঃ
ঝিনুক টিভির পক্ষথেকে সকল দর্শকদের জানাচ্ছি আন্তরিক শুভেচ্ছা। ঝিনুক টিভি আসছে নতুন নতুন সব আয়োজন নিয়ে। পাশেই থাকুন
বালিশ-বিছানা থেকে কম ছড়ায় করোনা, বলছে গবেষণা

বালিশ-বিছানা থেকে কম ছড়ায় করোনা, বলছে গবেষণা

করোনা আক্রান্তদের বিছানার চাদর, বালিশ ভাইরাসে ভর্তি থাকে। শুধু তাই নয়, হাসপাতালের যে ঘরে করোনা আক্রান্তরা থাকেন, সেখানকার মেঝেও জীবাণুতে ভর্তি থাকে। কিন্তু তা থেকে সংক্রমণ ছড়ায় না। হালের গবেষণায় উঠে এসেছে এমনই গুরুত্বপূর্ণ তথ্য। খবর আনন্দবাজারের

খবরে বরা হয়, সম্প্রতি ক্যালিফোর্নিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের সান দিয়েগো স্কুল অব মেডিসিনের গবেষকরা করোনার সংক্রমণ নিয়ে গবেষণা করছিলেন। তা থেকেই উঠে এসেছে নতুন কিছু তথ্য। তার মধ্যে অন্যতম হল স্পর্শ বা কোনও মেঝে থেকে এ ভাইরাস বিপুল পরিমাণে ছড়িয়ে পড়ে না। মুখ থেকে বেরিয়ে আসা বাষ্পের মাধ্যমেই এর সংক্রমণ হওয়ার আশঙ্কা সবচেয়ে বেশি। এমনকি স্বাস্থ্যবিধি মেনে, যথাযথভাবে সাবধান হয়ে যেসব স্বাস্থ্যকর্মীরা করোনা রোগীদের পরিচর্যা করেছেন, তাদের শরীরেও এই ভাইরাসের সংক্রমণের পরিমাণ অত্যন্ত কম।

শুধু তাই নয়, গবেষণায় উঠে এসেছে আরো একটি তথ্য। গবেষকরা করোনাভাইরাসের সঙ্গে আরো একটি জীবাণু বা ‘মাইক্রোবস’ এর সম্পর্ক খুঁজে পেয়েছেন। এই ভাইরাসের সংক্রমণ হলে বহু ক্ষেত্রেই রোগীর শরীরে ওই জীবাণুটিও বাসা বাঁধে। আর এটিই হৃদরোগের অন্যতম কারণ। করোনায় আক্রান্ত হলে বহু রোগীরই পরবর্তী সময়ে হৃদরোগের আশঙ্কা দেখা দিচ্ছে। এই নির্দিষ্ট জীবাণুটি সম্পর্কে ভবিষ্যতে আরো বেশি করে জানা গেলে হৃদরোগের আশঙ্কা কমানো যাবে বলে আশা করছে গবেষকরা।

স্পর্শ বা কোনও মেঝে থেকে কোভিডের জীবাণু ছড়িয়ে না পড়লে, হাত ধোওয়া বা স্যানিটাইজ করার প্রয়োজন কি কমে যাবে? এখনই এর উত্তর দিচ্ছেন না গবেষকরা। বলছেন, স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে। তবে গত বছরে যে সব গবেষণায় দাবি করা হয়েছিল, স্পর্শ বা মেঝে থেকে এই ভাইরাস ব্যাপক পরিমাণে ছড়িয়ে পড়ে, সেই তত্ত্বকে কিছুটা প্রশ্নের মুখে দাঁড় করিয়েছে হালের এই গবেষণাটি।

শেয়ার করুনঃ

Comments are closed.

© All rights reserved © 2020 | jhenuktv.com
Developed BY POS Digital